মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ০২:৪৪ পূর্বাহ্ন

নোটিশ :
✆ন্যাশনাল কল সেন্টার:৩৩৩| স্বাস্থ্য বাতায়ন:১৬২৬৩|আইইডিসিআর:১০৬৬৫|বিশেষজ্ঞ হেলথ লাইন:০৯৬১১৬৭৭৭৭৭
সংবাদ শিরোনাম
বাংলাদেশে নারী প্রধানমন্ত্রীর পর এবার রাষ্ট্রপতি হতে যাচ্ছেন একজন নারী বোয়ালখালী উপজেলা চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন ১৬ মার্চ দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন : চট্টগ্রামে ভোট দেবেন তিন লাখ নতুন ভোটার বাড়লো গ্যাসের দাম:কার্যকর হবে ফেব্রুয়ারিতে চট্টগ্রাম বন্দরে এমভি কমন এটলাস জাহাজ বার্থিং উদ্বোধনে নৌ-প্রতিমন্ত্রী ব্যারিস্টার মনোয়ার হোসেনের সাথে বোয়ালখালীতে কর্মরত সাংবাদিকদের মতবিনিময় “প্রাচীন চট্টগ্রামের ইতিহাস নবপ্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে হবে”-কিরাত বাংলা লেখক সম্মিলনে বক্তারা বিরোধীদলের আন্দোলনে আমরা মাঠে এবং সতর্ক অবস্থানে থাকবো :চট্টগ্রামে ওবায়দুল কাদের চট্টগ্রামে আওয়ামীলীগ নেতাকর্মীদের ভালোবাসায় সিক্ত বিপ্লব বড়ুয়া স্বদেশ প্রত্যাবর্তনে বঙ্গবন্ধুঃ-“তোমাদের রক্ত বৃথা যেতে দিব না”;বৃথা যায় নি।

২০ বছর পর কমিটি পাচ্ছে চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগ

ফেইসবুকে নিউজটি শেয়ার করুন...

এস এম ইরফান নাবিল :

দীর্ঘ ২০ বছর পর অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগের সম্মেলন। আগামী ১০ এপ্রিল সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন সংগঠনটির কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক একেএম আফজালুর রহমান বাবু। সম্মেলনকে কেন্দ্র করে ইতোমধ্যে প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছেন স্থানীয় নেতাকর্মীরা। ফলে খুব শিগগির নতুন কমিটি পেতে যাচ্ছে নগর স্বেচ্ছাসেবকলীগ।
এ সম্পর্কে জানতে চাইলে একেএম আফজালুর রহমান বাবু দৈনিক সমরকে বলেন, ২০১৯ সালে দায়িত্ব নেওয়ার পর আমরা মেয়াদোত্তীর্ণ থানা, জেলা ও মহানগর কমিটিগুলোতে সম্মেলন করার প্রস্তুতি নিয়েছিলাম। কিন্তু, করোনার কারণে সম্মেলনের আয়োজন করা সম্ভব হয়নি। এখন পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হয়েছে। তাই সংগঠনকে শক্তিশালী করতে সম্মেলন পুনরায় শুরু করার উদ্যেগ নিয়েছি।আগামী ১০ এপ্রিল চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। এরপর ধারাবাহিকভাবে থানা, জেলা ও মহানগর কমিটিগুলোতে সম্মেলনের আয়োজন করা হবে।’
তিনি আরও বলেন, সম্মেলনের পর খুব শিগগির চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগের নতুন কমিটি ঘোষণা করা হবে। নবীন-প্রবীণের সমন্বয়ে এই কমিটি ঘোষণা করা হবে।
২০০১ সালের জুলাই মাসে ২১ সদস্য বিশিষ্ট চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগের কমিটি ঘোষণা করে কেন্দ্রীয় কমিটি। তবে গত ২০ বছরেও এখানে পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করতে পারেনি আহ্বায়ক কমিটির নেতারা। এমনকি ওয়ার্ড এবং থানা পর্যায়েও কোনও কমিটি ঘোষণা করতে পারেননি তারা। যে কারণে হতাশ হয়ে পড়েছেন নেতাকর্মীরা। তৃণমূল নেতাকর্মীরা জানিয়েছেন, নগর আওয়ামী লীগের রাজনীতি দুই ধারায় বিভক্ত। একটি পক্ষ প্রয়াত আওয়ামী লীগ নেতা এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীর ছেলে শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেলের হয়ে রাজনীতি করেন, অন্যটি সাবেক মেয়র নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দিনের হয়ে রাজনীতি করেন। কমিটির দায়িত্ব কাকে দেবেন, কাকে বাদ দেবেন সেই চিন্তায় থানা ও ওয়ার্ড কমিটি দিতে পারেননি আহ্বায়ক কমিটি। একই কারণে দীর্ঘদিন সম্মেলনও হয়নি। যে কারণে এতদিন স্থবির হয়ে পড়েছিল নগর স্বেচ্ছাসেবকলীগের কার্যক্রম। তবে এখন সম্মেলনকে কেন্দ্র করে আবার সবাই সক্রিয় হয়ে উঠেছেন। নতুন কমিটিতে স্থান পেতে দৌড়ঝাঁপ শুরু করেছেন নেতাকর্মীরা। ধরনা দিচ্ছেন শীর্ষ নেতাদের কাছে।
নগর স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতাকর্মীরা জানিয়েছেন, এবার কমিটিতে স্থান পাওয়ার জন্য প্রয়াত আওয়ামী লীগ নেতা এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী তথা তার ছেলে নওফেল এবং সাবেক মেয়র মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দিনের অনুসারী কমপক্ষে ১০ জন আলোচনায় রয়েছেন। এদের মধ্যে থেকে নতুন নেতৃত্ব আসবে বলে তাদের ধারণা। আলোচনায় থাকা নেতারা হলেন- নওফেল অনুসারী দেবাশীষ নাথ দেবু, আজিজুর রহমান, মো. জসিম উদ্দিন, মনোয়ার জাহান মনি, কাউন্সিলর আবুল হাসনাত বেলাল। আ জ ম নাছির উদ্দীনের অনুসারী হেলাল উদ্দিন, সুজিত দাশ এবং আব্দুর রশিদ লোকমান। এর বাইরে আলোচনায় রয়েছেন নগর স্বেচ্ছাসেবকলীগের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট এ এইচ এম জিয়া উদ্দিনের অনুজ অ্যাডভোকেট তসলিম উদ্দিন, আজাদ খান অভি ও শাহেদ আলী রানা।
এ সম্পর্কে জানতে চাইলে মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট এ এইচ এম জিয়া উদ্দিন দৈনিক সমরকে বলেন, আমাদের দায়িত্ব দেওয়ার পর তৃণমূলের কমিটিগুলো গঠন করেছি। নগর কমিটির সম্মেলন করার চেষ্টা করলেও বিভিন্ন কারণে তা হয়নি। আগামী ১০ এপ্রিল সম্মেলনের আয়োজনের জন্য নির্দেশনা দিয়েছে কেন্দ্রীয় কমিটি। আমরা সেই অনুযায়ী প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছি। আমরা চাই সবাইকে নিয়ে সম্মেলনের মাধ্যমেই নতুন নেতৃত্ব আসুক। যারা দীর্ঘদিন ধরে সাংগঠনিক কর্মকান্ডে সক্রিয় ছিল তারা কমিটিতে স্থান পাক।
সম্মেলন প্রসঙ্গে কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবকলীগের সহ-সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার ফারুক আমজাদ খান দৈনিক সমরকে বলেন, ‘স্বেচ্ছাসেবকলীগ আওয়ামী লীগের অঙ্গ সংগঠনগুলোর মধ্যে সবচেয়ে সক্রিয় সংগঠন। এই সংগঠনকে আরও গতিশীল করতে আমরা মহানগর কমিটিগুলো পুনর্গঠনের উদ্যোগ নিয়েছি। আগামী ১০ এপ্রিল চট্টগ্রাম মহানগর স্বেচ্ছাসেবকলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। সম্মেলনের মাধ্যমে এখানে নতুন নেতৃত্ব নির্ধারণ করা হবে। সম্মেলন নিয়ে কথা বলতে আমরা চট্টগ্রাম এসেছি। আশা করছি, এপ্রিল মাসের মধ্যেই এখানে নতুন কমিটি দিতে পারবো।’

ফেইসবুকে নিউজটি শেয়ার করুন...

আপনার মন্তব্য লিখুন


Archive

© All rights reserved © 2021 Dainiksomor.net
Design & Developed BY N Host BD