মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৫:০৮ পূর্বাহ্ন

নোটিশ :
✆ন্যাশনাল কল সেন্টার:৩৩৩| স্বাস্থ্য বাতায়ন:১৬২৬৩|আইইডিসিআর:১০৬৬৫|বিশেষজ্ঞ হেলথ লাইন:০৯৬১১৬৭৭৭৭৭
সংবাদ শিরোনাম
আজারবাইজানে ফিদে ওয়ার্ল্ড ইয়ুথ অনুর্ধ্ব-১৬ দাবা অলিম্পিয়াড ১ অক্টোবর থেকে মার্কস অ্যাক্টিভ স্কুল দাবা প্রতিযোগিতা-২০২২ : ইস্পাহানী পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজ চ্যাম্পিয়ন দূর্ভোগ এড়াতে অভিভাবকদের জন্য বসার স্থান করলেন এমপি মোছলেম উদ্দীন শেখ হাসিনা বাংলাদেশের সবচেয়ে সফল রাষ্ট্রনায়ক শিগগিরই তিস্তা চুক্তি সই হবে: আশা প্রধানমন্ত্রীর অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান: জরিমানা ৫ হাজার বোয়ালখালীতে দুই শিশুর রহস্যজনক মৃত্যু শুক্র-শনিবার সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ: সরকারি অফিস সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৩টা মুলকুতুর রহমান সড়ক মহল্লা উন্নয়ন পরিষদ কমিঠি গঠিত আজ জাতীয় শোক দিবস: ‘বাংলাদেশের জনক’ বা বঙ্গবন্ধু বলাটা নিতান্তই কম বলা

জাপানি মোড়কে নকল ইয়ামাহা মোটরসাইকেল দেশে ঢুকছে ভারত থেকে

ফেইসবুকে নিউজটি শেয়ার করুন...

স্টাফ রিপোর্টার :
‘জাপানি মোটরসাইকেল’ নাম দিয়ে ভারত থেকে অভিনব কৌশলে দেশের বাজারে ঢুকছে নকল ও নিম্নমানের মোটরসাইকেল। ঢাকাভিত্তিক একটি প্রতিষ্ঠান ভারতীয় একটি কোম্পানি থেকে অবৈধভাবে নিম্নমানের ইয়ামাহা মোটর সাইকেল আমদানি করে যাচ্ছে দীর্ঘদিন ধরে। এ ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর চট্টগ্রাম কাস্টমস কর্তৃপক্ষ নড়েচড়ে বসেছে। অবৈধ ওই আমদানিকারকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রস্তুতিও নিচ্ছে সংস্থাটি।
জানা গেছে, জাতীয় রাজস্ব বোর্ড এনবিআরের জারি করা মেধাস্বত্ব বিধিমালা ভঙ্গ করে ভারত থেকে অবৈধভাবে ইয়ামাহা মোটরসাইকেল আমদানি করা হচ্ছে চট্টগ্রাম বন্দর দিয়ে। ঢাকার নিউ ইস্কাটন রোডের এএমএস ইন্টারন্যাশনাল নামের একটি প্রতিষ্ঠান ভারতের একটি কোম্পানি থেকে এসব ইয়ামাহা মোটরসাইকেল অবৈধভাবে আমদানি করছে।
সংশি­ষ্ট সূত্র জানায়, বাংলাদেশে জাপানের তৈরি করা মোটরসাইকেল আমদানির অনুমোদিত কোম্পানি এসিআই মোটরস। কিন্তু বৈধ এই প্রতিষ্ঠানকে পাশ কাটিয়ে ঢাকার এএমএস ইন্টারন্যাশনাল ভারত থেকে নকল ও নিম্নমানের ইয়ামাহা মোটর সাইকেল আমদানি করে চলেছে— যা কাস্টমস আইনে নিষিদ্ধ।
জানা গেছে, ২০১৬ সাল থেকেই জাপানের ইয়ামাহা মোটরসের অনুমোদিত ডিলার এসিআই মোটরস। গত ২ মার্চ জাপানি ইয়ামাহা কোম্পানির সাথে এসিআই মোটসের্র চুক্তি আরও দুই বছরের জন্য নবায়ন করা হয়।
এদিকে মেধাস্বত্ব জালিয়াতির এমন ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর এসিআই মোটর্সের পক্ষ থেকে চট্টগ্রাম কাস্টমস কমিশনার বরাবর গত বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) একটি আবেদন করা হয়। এতে কাস্টমস আইনে অবৈধ ওই আমদানিকারকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বলা হয়। চট্টগ্রাম কাস্টমস কমিশনার মোহাম্মদ ফখরুল আলম বিষয়টি ‘অতি জরুরি’ উলে­খ করে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য নির্দেশ দেন জয়েন্ট কমিশনার (জেসি) জেটি তোফায়েল আহমদ ও সহকারী কমিশনার (এসি) এআইআর মোহাম্মদ রেজাউল করীমকে।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে এসিআই মোটর লিমিটেডের বিজনেস ম্যানেজার মোহাম্মদ রবিউল হক বলেন, ‘ইয়ামাহা মোটর সাইকেল আমদানির জন্য আমরাই একমাত্র ডিলার। জাপান থেকে সঠিক পণ্যটা আমদানি করে এসিআই মোটর্স। কিন্তু ভারত থেকে একই ব্রান্ডের ইয়ামাহা মোটরসাইকেলগুলো নকল। অবৈধভাবে আমদানি করা নকল ইয়ামাহা মোটর সাইকেল কিনে ক্রেতারাও প্রতারিত হচ্ছে।’
চট্টগ্রাম কাস্টমস সূত্রে জানা যায়, ঢাকার নিউ ইস্কাটন রোডের এএমএস ইন্টারন্যাশনাল ভারতের রপ্তানিকারক কোম্পানি ইন্ডিয়ান মোটর্স থেকে ইয়ামাহা মোটরসাইকেল আমদানি করছে। এ জন্য সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক থেকে এলসি (০০০০১২২০২০০১০১৭১) করে ৫৮ হাজার ৫০০ ডলার পরিশোধও করা হয়েছে। এতে ৫০টি ইয়ামাহা এফ জেড ১৫০ সিসির মোটর সাইকেল কেনার কথা উলে­খ করা হয়।
এ চালানটি ছাড় নেওয়ার জন্য চট্টগ্রাম কাস্টমসে গত ১৩ নভেম্বর বিল অব এন্ট্রি (সি নং ১৫৬১৬৮২) দাখিল করে চট্টগ্রামের আগ্রাবাদের বারেক বি­ডিংস্থ সাবের প­াজার সিএন্ডএফ এজেন্ট এইচএম ইন্টারন্যাশনাল। ওই সিএন্ডএফের মালিক হানিফ মাহমুদ বলেন, ‘মেধাস্বত্ব যাদের অনুকূলে থাকবে, তারাই কোম্পানির ব্যবসা পরিচালনা করবে— এটা স্বাভাবিক। কিন্তু এসিআই কোম্পানির কাছে সেটি আছে কিনা আমার সন্দেহ রয়েছে। তবে কাস্টমসই সঠিক সিদ্ধান্ত দেওয়ার মালিক।’
এ বিষয়ে কাস্টমস হাউসের অডিট, ইনভেস্টিগেশন এন্ড রিসার্চ টিম (এআইআর) সহকারী কমিশনার মোহাম্মদ রেজাউল করীম বলেন, ‘মেধাস্বত্ব যে কোম্পানির অনুকূলে, সেই কোম্পানিই মোটরসাইকেল আমদানি করতে পারবে। এর বাইরে কেউ আমদানি করলে তা হবে অবৈধ। তবে কাস্টমস হাউসের সংশ্লি­ষ্ট গ্রুপের কর্মকর্তাদের বিষয়টি নিয়ে অবগত করা হলে বিল অব এন্ট্রি দাখিলের পর ব্যবস্থা গ্রহণ করা যেতো। এসিআই মোটর লিমিটেডের আবেদনের বিষয়টিও তদন্তসাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

ফেইসবুকে নিউজটি শেয়ার করুন...

আপনার মন্তব্য লিখুন


Archive

© All rights reserved © 2021 Dainiksomor.net
Design & Developed BY N Host BD